কক্সবাজারে স্কুল শিক্ষিকাকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ

কক্সবাজার সদরের ঝিলংজায় এক স্কুলশিক্ষিকাকে সংবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগ ওঠেছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা হলেও জড়িত কাউকে এখনও গ্রেফতার করা যায়নি।মামলার এজাহারে বলা হয়, শুক্রবার (১৯ আগস্ট) সকালে একটি মেহেদী অনুষ্ঠান থেকে ফেরার পথে ভুক্তভোগী ওই শিক্ষিকা ধর্ষণের শিকার হন। কিন্তু ওই দিন ঘটনাটি ঘটলেও সোমবার (২২ আগস্ট) রাত ১২টার দিকে পিএমখালী ইউনিয়নের ছনখোলা ইউনূছঘোনা এলাকার বেদার মিয়াসহ (২৮) অজ্ঞাতপরিচয় আরও তিনজনকে আসামি কক্সবাজার সদর মডেল থানায় মামলা দায়ের করা হয়।

মামলায় ধর্ষণে জড়িত উপজেলার পিএমখালী ইউনিয়নের ছনখোলা ইউনূছঘোনা এলাকার বেদার মিয়াসহ (২৮) অজ্ঞাতপরিচয় আরও তিনজনকে আসামি করা হয়েছে।এজাহার সূত্রে আরও জানা যায়, গত ১৮ আগস্ট রাতে কক্সবাজার সদরের পিএমখালীর মালিপাড়া থেকে ওই শিক্ষিকা তার এক ভাগনির মেহেদী অনুষ্ঠানে যান। সেখানে বেদার মিয়া নামের একজনের সঙ্গে তার পরিচয় হয়। পরদিন সকাল সাড়ে ৭টার দিকে ওই স্বজনের বাড়ি থেকে ইজিবাইকে করে নিজবাড়িতে ফিরছিলেন তিনি।

ওসময় ঝিলংজা ইউনিয়নের বাংলাবাজার ব্রিজ নামক এলাকায় পৌঁছালে বেদার ও তার সহযোগীরা তাকে জোরপূর্বক আরেকটি ইজিবাইকে তুলে নেয়। পরে ওই ইউনিয়নের চান্দের পাড়ার একটি নির্মাণাধীন ভবনে নিয়ে অস্ত্রের মুখে তারা তাকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে।বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কক্সবাজার সদর মডেল থানার ওসি তদন্ত মো. সেলিম উদ্দিন।

তিনি বলেন, ওই নারীর এজাহার পাওয়ার পর মামলা লিপিবদ্ধ করা হয়েছে। আসামি গ্রেপ্তারে পুলিশের একাধিক টিম মাঠে কাজ করছে।মেডিকেল পরীক্ষার জন্য ওই নারীকে হাসপাতালের ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছে বলেও জানান সেলিম উদ্দিন।

About admin

Check Also

সরকারের দেওয়া আশ্রায়ণের ঘর নিয়ে বিপাকে ভিক্ষুকপুত্র

টাঙ্গাইলের ভূঞাপুর পৌরসভায় সরকারের আশ্রায়ণ প্রকল্পের (খ শ্রেণি) ঘর পেয়েও সেখানে বসবাস করতে পারছেন না …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *